Breaking News

Dhokla



Dhokla ( ধোকলা )

ধোকলা একটি গুজরাটি খাবার। কিন্তু এর অসাধারণ স্বাদের জন্য আজ ভারতীয়দের মধ্যে এই খাবারটি ভীষণ জনপ্রিয়। আজকল অনেকেই আছেন যারা জলখাবারে ধোকলা বানান বাড়ির সকলের জন্য। খাবারটি শুধু যে টেস্টি তাই নয়, উপকারীও বটে। ভাবছেন তো, নিশ্চই খুব ঝামেলার রেসিপি...একদম ই নয়, ভীষণ সহজ এবং বানাতে মোটেও বেশি সময় লাগবে না। তাহলে আসুন জেনে নিই কিভাবে বানাতে হয় সুস্বাদু ধোকলা।


উপকরণ: 

১০০ গ্রাম বেসন,
৫০ গ্রাম সুজি,
১০০ গ্রাম টকদই,
১টি পাতিলেবুর রস,
১ চা চামচ ইনো /বেকিং সোডা,
সামান্য চিনি,
আধ চা চামচ হলুদগুঁড়ো,
সামান্য হিং,
স্বাদমতো নুন,
৪ টেবিল চামচ সাদা তেল,
১ টেবিল চামচ গোটা সর্ষে,
৬-৭টি কাঁচা লঙ্কা,
৮-১০ টি কারি পাতা,
আধ মালা নারকেল কোড়া,
২ টেবিল চামচ ধনেপাতা কুচি


প্রণালী:

১) দুটি কাঁচা লঙ্কা বেটে নিন। 


২) একটি বড় বাটিতে বেসন, সুজি, কাঁচা লঙ্কা বাটা, পাতিলেবুর রস, চিনি, নুন ও টক দই এক সঙ্গে মিশিয়ে ফেটান। অল্প জল দিয়ে মিহি গোলা তৈরি করুন।

৩) এবার এতে ইনো দিয়ে শুধু এক পাশ করে ঘুরিয়ে ঘুরিয়ে  ১ মিনিট ধরে মেশাতে হবে। মেশানো হলে দেখবেন মিশ্রণটা অনেকটা ফুলে দিগুনের মত হয়ে গেছে।


৪) যে বাটিতে ধোকলা বানাবেন, তাতে এক চামচ সাদা তেল দিয়ে বাটির ভিতরটা ভাল করে বুলিয়ে নিন। তার পর ধোকলার মিশ্রণ ঢেলে দিন।

৫) এ বার একটি বড় পাত্রে জল গরম করে ধোকলার বাটি বসান। জল এমন ভাবে দিতে হবে যেন পাত্রের অর্ধেকের কম থাকে।জল শুকিয়ে গেলে আবার দিতে হবে।চাপা দিয়ে মিনিট দশেক সেদ্ধ করুন। ১০ মিনিট পর ঢাকনা খুলে ছুরি বা কাঠি ঢুকিয়ে দেখতে হবে হয়েছে কিনা।যদি কাঠির গায়ে লেগে আসে তাহলে আরো কিছুক্ষণ রাখতে হবে।ধোকলা সেদ্ধ হয়ে গেলে নামিয়ে নিন। 



৬) অন্য একটি পাত্রে সাদা তেল গরম করুন। তাতে এক চিমটে হিং ও সরষে ফোড়ন দিন। তাতে সামান্য নুন, কাঁচা লঙ্কা চেরা ও মিষ্টি দিয়ে না়ড়ুন। কুরিয়ে রাখা নারকেলও দিয়ে দিন।

৭) এ বার ধোকলার উপরে ফোড়নের মশলা, কুচনো ধনে পাতা ও নারকেল কোরা দিয়ে ধনেপাতার চাটনি বা তেতুলের চাটনি দিয়ে পরিবেশন করুন।

No comments